1. sm.khakon@gmail.com : bkantho :
ঘূর্ণিঝড় ‘মোখা’ : এসএসসি পরীক্ষা স্থগিতের সিদ্ধান্ত পরিস্থিতি বুঝে - বাংলা কণ্ঠ নিউজ
শনিবার, ২০ জুলাই ২০২৪, ১০:৪০ অপরাহ্ন

ঘূর্ণিঝড় ‘মোখা’ : এসএসসি পরীক্ষা স্থগিতের সিদ্ধান্ত পরিস্থিতি বুঝে

ডেস্ক নিউজ
  • বৃহস্পতিবার, ১১ মে, ২০২৩
  • ১০৬ বার পড়া হয়েছে
এসএসসি পরীক্ষার ফল ৯ থেকে ১১ মে’র মধ্যে প্রকাশ
ফাইল ছবি।

ঘূর্ণিঝড় ‘মোখা’র পরিস্থিতি অনুসারে চলমান এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে বলে জানিয়েছেন ঢাকা শিক্ষাবোর্ডের চেয়ারম্যান ও আন্তঃশিক্ষাবোর্ডের সমন্বয়ক প্রফেসর তপন কুমার সরকার।

তিনি বলেন, এখনো পরীক্ষা স্থগিত বা পেছানোর কোনো সিদ্ধান্ত এখনো হয়নি। তবে পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করছে আন্তঃশিক্ষাবোর্ড।

বৃহস্পতিবার (১১ মে) দুপুরে তিনি বলেন, ‘অনেক অভিভাবক-শিক্ষার্থী জানতে চাইছেন ঘূর্ণিঝড় মোখার কারণে চলমান এসএসসি পরীক্ষা স্থগিত করা হবে কি না। আসলে এ বিষয়ে কোনো সিদ্ধান্ত এখনো নেয়া হয়নি। তবে আমরা পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করছি। পরিস্থিতি বুঝে পরবর্তী সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।’

পরিস্থিতি খারাপ হলে পরীক্ষা কী শুধু উপকূলীয় অঞ্চলে স্থগিত হবে, নাকি সারাদেশে স্থগিত হবে এমন প্রশ্নে বোর্ড চেয়ারম্যান বলেন, এটাও পরিস্থিতি দেখে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।

এদিকে, এদিন বিকেলে অধ্যাপক তপন কুমার সরকার স্বাক্ষরিত এক চিঠিতে জানানো হয়,‌ দেশের সব শিক্ষা বোর্ডে এসএসসি/সমমান পরীক্ষা ২০২৩ চলমান রয়েছে। এরইমধ্যে প্রাকৃতিক দুর্যোগ ঘূর্ণিঝড় ‘মোখা’ আগামী ২/১ দিনের মধ্যে দেশের উপকূল অঞ্চলসহ সারা দেশে প্রবল বেগে অতিক্রম করতে পারে বলে আবহাওয়া অধিদফতরসহ বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমে সতর্কতামূলক সংবাদ পরিবেশন করা হচ্ছে।

বোর্ডগুলোর এসএসসি/সমমান পরীক্ষা চলমান থাকায় বোর্ডগুলোকেও সতর্কতামূলক ব্যবস্থা গ্রহণ করা আবশ্যক। এ লক্ষ্যে ট্রেজারি, থানা ও পরীক্ষা কেন্দ্রে রক্ষিত পরীক্ষা সংক্রান্ত সব গোপনীয় মালামাল নিরাপদ ও সতর্কতার সাথে সংরক্ষণ করার জন্য স্ব স্ব বোর্ডের নির্দেশনা দেয়া একান্ত প্রয়োজন।

এদিকে, ঘূর্ণিঝড় মোখা আজ বৃহস্পতিবার সকাল ৬টায় চট্টগ্রাম সমুদ্রবন্দর থেকে ১২৯৫ কিলোমিটার দক্ষিণ-দক্ষিণ পশ্চিমে, কক্সবাজার সমুদ্রবন্দর থেকে ১২২০ কিলোমিটার দক্ষিণ-দক্ষিণ পশ্চিমে, মোংলা সমুদ্রবন্দর থেকে ১২৬৫ কিলোমিটার দক্ষিণ-দক্ষিণপশ্চিমে এবং পায়রা সমুদ্রবন্দর থেকে ১২২৫ কিলোমিটার দক্ষিণ-দক্ষিণ পশ্চিমে অবস্থান করছিল।

আবহাওয়া অধিদফতর জানিয়েছে, ঘূর্ণিঝড় কেন্দ্রের ৫৪ কিলোমিটারের মধ্যে বাতাসের একটানা সর্বোচ্চ গতিবেগ ঘণ্টায় ৬২ কিলোমিটার। এটি দমকা অথবা ঝড়ো হাওয়ার আকারে ৮৮ কিলোমিটার পর্যন্ত বৃদ্ধি পাচ্ছে। ঘূর্ণিঝড় কেন্দ্রের কাছাকাছি এলাকায় সাগর বিক্ষুব্ধ রয়েছে।

মোখা ‘প্রবল ঘূর্ণিঝড়ে রূপ নিতে পারে’ বলে ধারণা করছেন আবহাওবিদরা। ঘূর্ণিঝড়ের পরিস্থিতি নিয়ে বুধবার দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী মো: এনামুর রহমান এক সংবাদ সম্মেলনে বলেছিলেন, ‘ঘূর্ণিঝড় মোখা হতে পারে সুপার সাইক্লোন।’

ঘূর্ণিঝড়টি টেকনাফ ও মিয়ানমারের উপকূলে আঘাত হানবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

সামাজিক মিডিয়ায় শেয়ার করুন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো খবর
Developer By Zorex Zira

Designed by: Sylhet Host BD