1. sm.khakon@gmail.com : bkantho :
বানিয়াচংয়ে সাগরদীঘি নিয়ে সংবাদ প্রকাশের পর দখলবাজদের দৌড়ঝাঁপ - বাংলা কণ্ঠ নিউজ
মঙ্গলবার, ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৫:১৫ পূর্বাহ্ন

বানিয়াচংয়ে সাগরদীঘি নিয়ে সংবাদ প্রকাশের পর দখলবাজদের দৌড়ঝাঁপ

হবিগঞ্জ প্রতিনিধি
  • শুক্রবার, ১৭ মার্চ, ২০২৩
  • ৪৫ বার পড়া হয়েছে
বানিয়াচংয়ে সাগরদীঘি নিয়ে সংবাদ প্রকাশের পর দখলবাজদের দৌড়ঝাঁপ

প্রধানন্ত্রী শেখ হাসিনা কর্তৃক বানিয়াচং সাগরদীঘিকে পর্যটন কেন্দ্র করার ঘোষণার প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়নের দ্বারপ্রান্তে এই রকম শিরোনামে কয়েকদিন পূর্বে স্থানীয় প্রিন্ট পত্রিকা ও বেশ কয়েকটি অনলাইন পত্রিকা সংবাদ প্রকাশের পর চারপাড়ের অবৈধ দখ্লদবাজরা নড়েচড়ে বসেছে। নিজেদের রক্ষা করতে বিভিন্ন জায়গায় দৌড়ঝাঁপ শুরু করে দিয়েছে তারা। সাগরদীঘি নিয়ে যাতে সংবাদ প্রকাশ না করা হয় পত্রিকার সম্পাদকের কাছেও নানা তদবিরে ব্যস্ত রয়েছে গুটি কয়েক দখলবাজরা।

তাছাড়া সংবাদ প্রকাশ করায় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এমনকি নানা জনের কাছে সাংবাদিকদের বিরুদ্ধে নানা কুৎসা রটনা করে যাচ্ছে। খোঁজ নিয়ে জানা যায়,সংবাদটি প্রকাশের পর পুরো উপজেলা জুড়ে একটি স্বস্তির নি:শ^াস নেমে এসেছে। নাম প্রকাশ না করার শর্তে চারপাড়বাসীর অনেকেই সাগরদীঘি পর্যটন কেন্দ্র হোক সেটা তারা চান। কিন্তু তারা সরকারের কাছে দাবি করছেন যাতে চুড়ান্ত কোনো কিছু করার আগে যেন তাদের নিয়ে পরামর্শ করে সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। এদের মধ্যে থেকে গুটিকয়েক দখলবাজ সাগরদীঘির জায়গায় গড়ে তোলা নিজেদের বসতবাড়ি উচ্ছেদ করা হবে মর্মে বাঁধা হয়ে দাঁড়িয়েছে। বতর্মানে এই সাগরদীঘি নতুন প্রজন্মের কাছেও ব্যাপক পরিচিতি লাভ করেছে। প্রায় সারা বছরই সাগরদীঘি পরিদর্শনে দেশী-বিদেশী পর্যটকরা আসেন। এই সরকারের সময়েই যাতে প্রধামন্ত্রীর দেয়া আশ্বাস বাস্তবায়ন হয় সেই আশা ই করছেন বানিয়াচংবাসী তথা ভ্রমণ পিপাসুরা।

এদিকে প্রধানন্ত্রীর ঘোষণার দ্রুত বাস্তাবায়ন ও মামলা সংক্রান্ত জটিলতা দ্রুত নিরসনের জন্য সাগরদীঘি নিয়ে পত্রিকায় প্রকাশিত সংবাদের কপি এবং মামলার যাবতীয় তথ্য-উপাত্তসহ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা,জেলা প্রশাসক ও পর্যটন প্রতিমন্ত্রীর কাছে স্মারকলিপি দেয়ার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। বানিয়াচং উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা পদ্মাসন সিংহ’র সাথে কথা হলে তিনি এই বিষয়ে জানান,সাগরদীঘির চার পাশের বাসিন্দাদের সাথে এটা নিয়ে মামলা চলমান থাকায় সামনের দিকে আগানো যাচ্ছিল না। একটা সময় তাদেরকে শুধুমাত্র পানি ব্যবহার করার অনুমতি দেয়া হয়েছিল। এখন যেহেতু মহামান্য সুপ্রিম কোর্টে রিভিউ আবেদনের জন্য শুনানীর অপেক্ষায় রয়েছে, আশা করছি খুব তাড়াতাড়িই সাগরদীঘিকে পর্যটনে রুপান্তরিত করতে প্রধানমন্ত্রীর দেয়া সেই আশ^াস বাস্তবে প্রতিফলন ঘটবে।

বিস্তারিত জানতে জেলা প্রশাসক ইশরাত জাহানের সাথে কথা হলে তিনি জানান,সরকারের পক্ষ থেকে বর্তমানে বানিয়াচং সাগরদীঘিটি লীজ দেয়া আছে। আমরা কিন্তু বসে নেই। প্রধানমন্ত্রীর ঘোষণা বর্তমান সরকারের সময়েই যাতে বাস্তবায়ন করা যায় সেই লক্ষ্যেই আমরা কাজ করে যাচ্ছি। পর্যটন কেন্দ্র গড়ে তুলতে চারপাড়ের অবৈধ দখলদারদের বিরুদ্ধে উচ্ছেদ অভিযান পরিচালনা করা হবে।

সামাজিক মিডিয়ায় শেয়ার করুন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো খবর
Developer By Zorex Zira

Designed by: Sylhet Host BD