1. sm.khakon@gmail.com : bkantho :
টিকা কেন্দ্রে মানুষের উপচে পড়া ভীড় - বাংলা কণ্ঠ নিউজ
বুধবার, ২২ মে ২০২৪, ০৪:৩৪ পূর্বাহ্ন

টিকা কেন্দ্রে মানুষের উপচে পড়া ভীড়

Reporter Name
  • শনিবার, ২৬ ফেব্রুয়ারী, ২০২২
  • ৪৯ বার পড়া হয়েছে

বাংলা কণ্ঠ ডেস্কঃ সারাদেশে এক দিনে এক কোটি ডোজ কভিড-১৯ টিকাদানের কাজ শুরু হয়েছে দেশ জুড়ে। আজ শনিবার সকাল সাড়ে ৮টা থেকে দেশের বিভিন্ন টিকাদান কেন্দ্রে শুরুর আগেই দীর্ঘ লাইন দেখা যাচ্ছে। বিশেষ এই কর্মসূচিতে দেয়া হচ্ছে টিকার প্রথম ডোজ। তাই ভোর বেলা থেকেই সর্বস্তরের জনগণ টিকা কেন্দ্রে এসে ঘণ্টার পর ঘণ্টা সারিবদ্ধভাবে লাইনে দাড়িয়ে থাকেন।

করোনা মহামারি প্রতিরোধে মোট জনসংখ্যার ৭০ শতাংশ মানুষকে প্রথম ডোজের আওতায় আনতে দেশব্যাপী শুরু হয়েছে ‘একদিনে এক কোটি কভিড-১৯ টিকাদান কার্যক্রম’। এই কার্যক্রমের আওতায় টিকাদান কেন্দ্রগুলোতে টিকা নিতে আসা মানুষের উপচে পড়া ভীড় লক্ষ্য করা গেছে। একইসঙ্গে ব্যাপক আগ্রহে টিকা নিচ্ছেন বিভিন্ন শ্রেণী পেশা এবং বয়সের মানুষ।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা গেছে, আর প্রথম ডোজ করোনা টিকা দেয়া হবে না, তাই কেন্দ্রে কেন্দ্রে টিকা নিতে আসা মানুষের ঢল নেমেছে। টিকা প্রত্যাশী অসংখ্য নারী-পুরুষ গাদা গাদি করে লাইনে দাঁড়িয়ে টিকার জন্য অপেক্ষা করছেন।

রাজধানীর মুগদা পাঁচ শ’ শয্যা জেনারেল হাসপাতালে সকাল ৯টার দিকে গিয়ে দেখা যায়, জন্ম নিবন্ধন সনদ কিংবা জাতীয় পরিচয়পত্র সঙ্গে নিয়ে লাইনে দাঁড়িয়ে মানুষ। কেউ কেউ টিকা কার্ডও নিয়ে এসেছেন। টিকা গ্রহীতাদের লাইন হাসপাতালের বাহিরের পর্যন্ত চলে এসেছে।

গার্মেন্টস শ্রমিক জামাল উদ্দিন বাড়ি রংপুরের পিরগাছার পার্বতীপুরে। তিনি বলেন, ‘শুনতেছি টিকা আর দেয়া হবে না। এ জন্য নিয়ে নিচ্ছি।’

রাজধানীর বিভিন্ন টিকাদান কেন্দ্রে মানুষের ভীড় দেখা গেছে। বাসাবো খেলার মাঠে অস্থায়ী টিকা কেন্দ্রে টিকা দিতে এসেছেন স্থানীয় গৃহিণী ঝর্ণা বেগম। তিনি বলেন, ভোটার আইডি নেই, জন্ম নিবন্ধন অনলাইন করা নেই। তাই এতদিন টিকা নিতে পারিনি। এখন জন্ম নিবন্ধন বা ভোটার আইডি কার্ড লাগবে না, তাই টিকা নিতে এসেছি।

বাংলাদেশে গত বছরের ৭ ফেব্রুয়ারি করোনাভাইরাসের টিকার প্রথম ডোজ দেয়া শুরু হয়। দুই মাস পর ৮ এপ্রিল শুরু হয় দ্বিতীয় ডোজ দেয়ার কার্যক্রম। আর গত বছরের (২০২১ সালের) ২৮ ডিসেম্বর তৃতীয় ডোজ বা বুস্টার ডোজ দেয়া শুরু করে স্বাস্থ্য অধিদফতর।

এর মধ্যে গত বছরের সেপ্টেম্বরে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জন্মদিন উপলক্ষে ৭৬ লাখ ডোজের বেশি টিকা দেয়া হয়েছিল এক দিনে।

এর আগে গত ১৫ ফেব্রুয়ারি সারাদেশে একদিনে এক কোটি ডোজ টিকা দেয়ার ঘোষণা দেয় স্বাস্থ্য অধিদফতর। ওইদিন জানানো হয় ২৬ ফেব্রুয়ারির পর প্রথম ডোজ টিকা দেয়া হবে না।

স্বাস্থ্য অধিদফতরের হিসেবে, শুক্রবার পর্যন্ত সারাদেশে ১০ কোটি ৯৫ লাখ ৮১ হাজারের বেশি মানুষ করোনাভাইরাসের টিকার প্রথম ডোজ নিয়েছেন। দ্বিতীয় ডোজ পেয়েছেন আট কোটি ১৯ লাখ এবং বুস্টার ডোজ নিয়েছেন ৩৫ লাখ ৫৯ হাজারের বেশি মানুষ।

সূত্র : বাসস

সামাজিক মিডিয়ায় শেয়ার করুন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো খবর
Developer By Zorex Zira

Designed by: Sylhet Host BD