সোমবার সকালে ফরহাদ মজহারের পরিবার অপহরণের অভিযোগ করার পর মোবাইল ফোন ট্র্যাক করে খুলনা অঞ্চলে অবস্থান শনাক্তের কথা জানিয়ে ওই অঞ্চলে অভিযান চালাচ্ছিল আইনশৃঙ্খলা বাহিনী।

এই অভিযানের মধ্যে রাত সাড়ে ১১টার দিকে যশোরের নওয়াপাড়ায় ঢাকাগামী একটি বাসে তাকে পাওয়ার কথা জানান র‌্যাব-৬ এর অধিনায়ক খন্দকার রফিকুল ইসলাম।

তিনি

বলেন, নওয়াপাড়ায় পাওয়ার পর ফরহাদ মজহারকে প্রথম অভয়নগর থানায় নেওয়া হয়। সেখান থেকে তাকে খুলনায় আনা হয়েছে। রাত দেড়টার দিকে তাকে ঢাকার পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হয়।

উদ্ধারের তিন ঘণ্টা আগে ফরহাদ মজহারকে খুলনায় নিজের রেস্তোরাঁয় দেখার দাবি করেছিলেন ‘নিউ গ্রীল হাউস’র মালিক আব্দুল মান্নান।

খুলনার নিউ মার্কেটের সামনে এই রেস্তোরাঁটি। মান্নানের কাছে খবর পাওয়ার পর র‌্যাব জোর অনুসন্ধান শুরুর কথা জানায়।

র‌্যাব কর্মকর্তা রফিকুল বলেন, “ফরহাদ মজহার খুলনার শিববাড়ী মোড় থেকে রাত সোয়া ৯টায় হানিফ পরিবহনের একটি বাসে ঢাকা রওনা হয়েছিলেন।”

শাহরিয়ার পলক নামে একজন নিজেও ওই বাসে ছিলেন দাবি করে তার ফেইসবুক পাতায় লিখেছেন, “খুলনা থেকে আসছি হানিফের বাসে করে! নোয়াপাড়ায় হঠাৎ করে গাড়ি দাঁড় করিয়ে রাখা হল! সুপারভাইজার কোনো কথার উত্তর দিলো না। প্রায় ৪০ মিনিট পর ৩টি র‍্যাবের গাড়ি এসে তল্লাশি করলো, আর বাসের পেছনের সিট থেকে উদ্ধার হলো – নিখোঁজ কবি ফরহাদ মজহার…..।”

print

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here